নতুনদের জন্য Fiverr

আসসালামু আলাইকুম, খলিফা নেটওয়ার্কে আপনাকে স্বাগতম!
কেমন আছেন? আশা করি আল্লাহর রহমতে ভালোই আছেন।

আপনি কি Fiverr এ নতুন? আপনি কি Fiverr থেকে আয় করতে চান? এখনও কি আপনার প্রথম গিগ অর্ডার পান নি?

উপরের প্রশ্নগুলো যদি আপনার মনের হয়ে থাকে তাহলে আমি বলবো আপনি সঠিক স্থানে আছেন। আমাদের এই পোস্টটি আপনার অনেক উপকারে আসবে, আমি ১০০% নিশ্চিত।

 

 

একটি সত্য কথা শুনে রাখুন, Fiverr এ Gig তৈরি করলেই আপনি কাজ পাবেন না এবং প্রথম অর্ডার পাওয়া সহজ কোন কথা নয়। আপনাকে হতাশ করার জন্য নয়, যা সত্যি তাই। আমি আপনাকে সত্য কথা বলি। Fiverr এতটা সহজ বিষয় নয়, যদি সহজ হতো তাহলে সবাই gig তৈরি করেই কাজ পেয়ে জেত। কিন্তু আপনি যদি Fiverr এ আপনার সময় দেন এবং উৎসাহ নিয়ে লেগে থাকেন তাহলেই আপনি Fiverr এ সফল হবেন এটি আমি গ্যারান্টি দিয়ে বলবো। Fiverr এ কাজ শুরু করার জন্য কী করতে হবে, কিভাবে করতে হবে এই পোস্টটি আপনাকে সত্যিই অনেক সহায়তা করবে! এগুলি অনুসরণ করুন তাহলেই আপনি সফল হবেন তাও – খুব শীঘ্রই! 

 

Fiverr এর প্রথম কাজঃ আপনার একটি পোর্টফোলিও তৈরি করা। যা হয়তো আপনি ইতিমধ্যে করে ফেলেছেন। এরপর আপনার দক্ষতাগুলোকে একটি তালিকাভুক্ত করুন এবং তা আপনার কম্পিউটারের নোটপ্যাড / ওয়ার্ড ফাইল-এ নথিভুক্ত করুন এবং সেভ করে রাখুন। আপনি কি কি কাজ জানেন তার বিবরণ দিয়ে gig তৈরি করুন।

ফাইভার একাডেমি https://www.fiverr.com/academy তে গিয়ে আপনার কাজ রিলেটেড বিষয় নিয়ে রিসার্চ করুন এবং নিয়মিতভাবে বিভিন্ন বিষয় নিয়ে এখান থেকে পড়াশুনা করুন। ফাইবার ব্লগ http://blog.fiverr.com/ এ যান, এখানে সবাই সবার সমস্যার কথা তুলে ধরে, সবাই সবার সমসসার সমাধান দিতে চেষ্টা করে, সাকসেস কিভাবে হবেন তার সকল টিপস, ট্রিক্স সহ অনেক কিছু জানতে পারবেন, এখানকার সকল পোস্ট সকল নতুন বা পুরানো সবার জন্য খুব সহায়ক। তাই আমি বলবো বেশি বেশি ফাইবার ফোরামের পোস্টগুলি পড়ুন এবং আপনার যদি প্রশ্ন থাকে তবে তা করুন, সমাধান পেয়ে যাবেন।

Fiverr মোবাইল অ্যাপ্লিকেশনটি ইনস্টল করুন – এটি খুব গুরুত্বপূর্ণ একটি বিষয়। আপনি যদি কম্পিউটার এর আওতায় না থাকেন তখন আপনাকে অনলাইন রাখার জন্য এটি খুব ভালো কাজ করবে, আপনি বায়ারের এসএমএস দেখতে পারবেন, রিপ্লে দিতে পারবেন, অনলাইনে থাকতে পারবেন। আর চেষ্টা করবেন সকল এসএমএস এর রিপ্লে খুব তারাতারি দেয়ার জন্য। তাহলে কাজ পেতে তেমন কোন সমসসা হবেনা।

ভালো মানের কিছু গিগ তৈরি করুন। আপনি যেই কাজে পারদর্শী সেগুলো নিয়েই গিগ তৈরি করুন। জেমনঃ ফটো এডিটিং, ভিডিও এডিটিং, ওয়েবসাইট ডেভেলপিং ইত্যাদি বিষয় আমি আবারো বলছি… যেই সকল বিষয়ে আপনি পারদর্শী সেই সকল বিষয়ে গিগ তৈরি করুন, আপনার তৈরি করা গিগ বিভিন্ন সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করুন, এতে করে আপনার গিগ এর ইম্প্রেসান বাড়বে, রেঙ্কে উঠে আসবে।

আপনার প্রতিটি দক্ষতা অনুযায়ী আলাদাভাবে কিছু গিগ তৈরি করুন। কিন্তু মনে রাখবেন, একটি বিষয় নিয়ে আলাদা গিগ তৈরি করবেন না, বিষয়বস্তু আলাদা করে আপনার দক্ষতা অনুযায়ী একাধিক গিগ তৈরি করুন এবং অবশ্যই একটি অন্যটি থেকে আলাদা করুন, আর বেশি বেশি সবার সাথে শেয়ার করুন।

Fiverr এরসর্বাধিক গুরুত্বপূর্ণ বিশয়ঃ বায়ার রিকয়েস্ট পেইজ কিছুক্ষণ পরপর চেক করুন। কম্পিউটারে যখন থাকবেন না তখন মোবাইল অ্যাপ দিয়েও বায়ার রিকয়েস্ট পেইজ করুন, এবং আপনার দক্ষতার উপর অফার সেন্ড করুন। একদিনে 10টির বেশি অফার সেন্ড করা জায়না, তার আপনার দক্ষতার উপর বায়ার রিকয়েস্ট দেখে অফার করুন।

এই কাজগুলিই প্রতিদিন করতে থাকুন। তাহলে ইনশা-আল্লাহ্‌ আপনি খুব শীঘ্রই আপনার প্রথম কাজের অর্ডারটি পেয়ে যাবেন। কিন্তু আবারো বলি… আপনাকে অবশ্যই প্রথম কাজ না পাওয়া পর্যন্ত ধৈর্য ধরতে হবে। এমন অনেকেই আছে যাদের প্রথম অর্ডারটি পেতে মাসের পর মাস লেগে গেছে। আর যখন মাত্র একটি অর্ডার পাবেন, তখন আর কষ্ট করে পিছনে ফিরে তাকাতে হবেনা। দোয়া করি, যেন আপনার প্রথম অর্ডারটি খুব তারাতারি পেয়ে যান, তাহলে কিন্তু অবশ্যই মিষ্টি কুরিয়ার করে পাঠাতে ভুলবেন না। 🙂 🙂 🙂

 

আমাদের পোস্টটি ভালো লাগলে অবশ্যই বন্ধুদের সাথে শেয়ার করুন, আর আমাদের ফেসবুক পেইজে লাইক দিয়ে সঙ্গে থাকুন।